ঢাকা ০৮:০৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ১২ আশ্বিন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
বিশেষ বিজ্ঞপ্তি ::
দেশের জনপ্রিয় সর্বাধুনিক নিয়ম-নীতি অনুসরণকৃত রাজশাহী কর্তৃক প্রকাশিত নতুনধারার অনলাইন নিউজ পোর্টাল 'যমুনা প্রতিদিন ডট কম' এ আপনাকে স্বাগতম...
সংবাদ শিরোনাম ::
২১১৫ পিস ইয়াবাসহ র‌্যাবের হাতে মাদক ব্যবসায়ী উজ্জল আটক ডিবির হাতে ইয়াবাসহ নারী মাদক কারবারি আটক বাঘায় আদালতের রায় উপেক্ষা করে জমি জবরদখল চেষ্টা,প্রতিবাদে মানববন্ধন লালমনিরহাট -১ আসনে আনোয়ারুল ইসলাম রাজুকে এমপি হিসেবে দেখতে চায় জনগণ শেখ হাসিনার জাদুকরি নেতৃত্বের ছোঁয়ায় দেশ বদলে গেছে : তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী অগণতান্ত্রিক সরকারকে হঠাতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে : নিতাই রায় চৌধুরী রুয়েটে ক্লাস শুরু ৩০ সেপ্টেম্বর,র‍্যাগিংয়ে কঠোর নিষেধাজ্ঞা লায়ন্স ইন্টারন্যাশনাল জেলা ৩১৫ বি১, বাংলাদেশ এর শুকরানা দোয়া ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত নিন্দুককে বৃদ্ধা আঙ্গুল দেখিয়ে ডা: তহিদ রাসেল ফিরতে চান নতুন রুপে বর্ণিল আয়োজনে জয়নিউজ বিডি ডট কমের ৫ম বর্ষপূর্তি উদযাপন

নাগেশ্বরীর বামনডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানকে মাধরের ঘটনায় গ্রেপ্তার ৩

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ
  • আপডেট সময় : ০৮:২০:২৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২৩ ৬৭ বার পড়া হয়েছে
যমুনা প্রতিদিন অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলার বামনডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান রনিকে মারধরের মামলায় এজাহারনামীয় তিন আসামীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (২৪জানুয়ারী) দুপুরের দিকে অভিযান চালিয়ে তাদের বাড়ি থেকে আটক করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, ওই ইউনিয়নের কুটিবামনডাঙ্গা এলাকার শামছুল ব্যাপারীর ছেলে জেমস ব্যাপারী, মালিয়ানী এলাকার মজিবর ব্যাপারীর ছেলে মিলন ব্যাপারী ও মৃত হাফেজ মুন্সীর ছেলে আখলাদ হোসেন।

এজাহারমূলে পুলিশ জানায়, সোমবার রাতে বন্ধু বাজারে চেয়ারম্যানের নিজস্ব অফিসে শালিস চলাকালে চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান রনির উপর হামলা চালায় সাবেক চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেনের ছোট ভাই সৈয়দ আলী ও নুরুল ইসলাম টুংকুসহ মুখোশ পড়া আরও ছয়-সাতজন।

তাদের রডের এলোপাতারি আঘাতে চেয়ারম্যানের মাথা ফেটে রক্তাক্ত হলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। পরে উপস্থিত লোকজন গুরুতর আহত অবস্থায় চেয়ারম্যানকে নাগেশ্বরী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। রাতে সেখান থেকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়।

এ ঘটনায় রাতে চেয়ারম্যান রনির পিতা মো. শাহ আলম বাদী হয়ে সাবেক চেয়ারম্যানসহ ১৫ জনকে আসামী করে নাগেশ্বরী থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলার বাদী দাবী করেছেন তার ছেলেকে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা চালিয়েছে তারা।

নাগেশ্বরী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নবীউল হাসান বলেন, আসামীদের ধরতে বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালানোর পর দুপুরের দিকে তাদের বাড়ি থেকে তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।তাদের আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

নাগেশ্বরীর বামনডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানকে মাধরের ঘটনায় গ্রেপ্তার ৩

আপডেট সময় : ০৮:২০:২৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২৩

কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলার বামনডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান রনিকে মারধরের মামলায় এজাহারনামীয় তিন আসামীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (২৪জানুয়ারী) দুপুরের দিকে অভিযান চালিয়ে তাদের বাড়ি থেকে আটক করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, ওই ইউনিয়নের কুটিবামনডাঙ্গা এলাকার শামছুল ব্যাপারীর ছেলে জেমস ব্যাপারী, মালিয়ানী এলাকার মজিবর ব্যাপারীর ছেলে মিলন ব্যাপারী ও মৃত হাফেজ মুন্সীর ছেলে আখলাদ হোসেন।

এজাহারমূলে পুলিশ জানায়, সোমবার রাতে বন্ধু বাজারে চেয়ারম্যানের নিজস্ব অফিসে শালিস চলাকালে চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান রনির উপর হামলা চালায় সাবেক চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেনের ছোট ভাই সৈয়দ আলী ও নুরুল ইসলাম টুংকুসহ মুখোশ পড়া আরও ছয়-সাতজন।

তাদের রডের এলোপাতারি আঘাতে চেয়ারম্যানের মাথা ফেটে রক্তাক্ত হলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। পরে উপস্থিত লোকজন গুরুতর আহত অবস্থায় চেয়ারম্যানকে নাগেশ্বরী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। রাতে সেখান থেকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়।

এ ঘটনায় রাতে চেয়ারম্যান রনির পিতা মো. শাহ আলম বাদী হয়ে সাবেক চেয়ারম্যানসহ ১৫ জনকে আসামী করে নাগেশ্বরী থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলার বাদী দাবী করেছেন তার ছেলেকে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা চালিয়েছে তারা।

নাগেশ্বরী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নবীউল হাসান বলেন, আসামীদের ধরতে বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালানোর পর দুপুরের দিকে তাদের বাড়ি থেকে তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।তাদের আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।