সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ০৯:২৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
রাজশাহী বরেন্দ্র কলেজের নতুন অধ্যক্ষ রণজিৎ কুমার সাহা জাতীয় ব্লাইন্ড ক্রিকেট পরিচালনা কমিটির সভাপতি হলেন সংগীতশিল্পী ফারদিন রাজশাহীতে বিশ্ব মেট্রোলজি দিবস পালন সারিয়াকান্দিতে উপজেলা পরিষদের নব নির্বাচিত চেয়ারম্যানকে সংবর্ধনা বিয়েতে রাজি না হওয়ায় আত্মহত্যা, প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে মামলা সারিয়াকান্দির সেই মেধাবী ছাত্র সাকিবুল হাসানের দায়িত্ব নিলেন সাহাদারা মান্নান এমপি সারিয়াকান্দিতে জিপিএ-৫ পেয়েও অর্থের অভাবে কলেজে ভর্তি অনিশ্চিত সাকিবুল হাসানের সারিয়াকান্দিতে ইউএনও’র সাথে নবনির্বাচিত ভাইস চেয়ারম্যানের শুভেচ্ছা বিনিময় সারিয়াকান্দিতে সরকারি খাদ্য গুদামে ইরি-বোরো ধান ও চাল সংগ্রহের শুভ উদ্বোধন সারিয়াকান্দিতে ট্যাপেন্টাডল ট্যাবলেটসহ গ্রেফতার-২
নোটিশ :
দেশের জনপ্রিয় সর্বাধুনিক নিয়ম-নীতি অনুসরণকৃত রাজশাহী কর্তৃক প্রকাশিত নতুনধারার অনলাইন নিউজ পোর্টাল ‘যমুনা প্রতিদিন ডট কম’

ওলামা লীগের ধারাবাহিতা ও সম্মেলন ২০২৩

মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ী :

১৯৬৬ সালের ১৩ এপ্রিল আওয়ামী লীগের পাশাপাশি ঐতিহাসিক ৬ দফার পক্ষে আলেম-ওলামা পীর-মাশায়েখ ও আরব দেশগুলোতে জননমত সৃষ্টির লক্ষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান প্রতিষ্ঠা করেন পূর্বপাকিস্তান আওয়ামী ওলামা পার্টি।পার্টির সভাপতির দায়িত্ব দেন মাওলানা অলিউর রহমান জালালাবাদীকে।

তার ধারাবাহিতায় ১৯৯৪ সালে পূর্ব পাকিস্তান আওয়ামী ওলামা পার্টির পূর্বপাকিস্তান ও পার্টি শব্দ দু’টি বাদ দিয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নামের সাথে মিল রেখে নামকরণ করা হয় বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগ।

সুতারং ১৯৬৬ এর ১৩ এপ্রিল থেকে হিসাব করলে আওয়ামী ওলামা লীগের প্রতিষ্ঠার বয়স দ্বারায় ৫৬ বছর।বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগ সর্বকালের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালি বাংলাদেশের স্থপতি এবং স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হাতে প্রতিষ্ঠিত সংলগঠন।পূর্ব-পাকিস্তান আওয়ামী ওলামা পার্টি (প্রতিষ্ঠাতা: বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, সভাপতি: বীর মুক্তিযোদ্ধা বুদ্ধিজীবী শহীদ ডাঃ মাওলানা অলিউর রহমান জালালাদী-১৯৬৬-১৯৭১)।

মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ আলেম-ওলামা পীর মাশায়েখকে ঐক্যবদ্ধ করে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের অসম্প্রদায়িক সোনার বাংলা বিনির্মাণে বঙ্গকন্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনার নেতৃত্বকে সমৃদ্ধ ও শক্তিশালীকরণের মাধ্যমে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে রাষ্ট্র ক্ষমতায় আসীন করার প্রত্যয়ে পূ্র্ব-পাকিস্তান আওয়ামী ওলামা পার্টির নাম পরিবর্তন করে সাম্য,ঐক্য,শান্তি শ্লোগান সামনে নিয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী ওালামা লীগ নামকরণ করার প্রস্তাব গ্রহণ করা হয়।

প্রস্তাব প্রাদানকারী সদস্যরা হলেন, (১) মুফতী মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ, (২) মাওলানা আব্দুল কবির খাঁন জামান, (৩) মাওলানা কাজী জহিরুল ইসলাম, (৪) বীর মুক্তিযোদ্ধা মাওলানা মুহাম্মদ হেদায়েত উল্লাহ, (৫) মাওলানা আবুল কালাম, (৬) মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ী, (৭) মুফতী শেখ শহিদুল ইসলাম, (৮) মাওলানা কাজী আব্দুল জব্বার, (৯) মাওলানা শহিদুল ইসলাম কাশিয়ানী (১০) মাওলানা মুজিবুর রহমান চিশতী প্রমুখ(১৯৯৪-৯৬)।

আহবায়ক : মাওলানা আবুল কালাম আজাদ, সদস্য সচিব, মুফতী শেখ মুহাম্মদ শহিদুল ইসলাম( ১৯৯৬)।

পরিবর্তী সময় স্বঘোষিত সভাপতি, হাফেজ হাবীবুল্লাহ কাচপুরী, সাধারণ সম্পাদক, মাওলানা কাজী জহিরুল ইসলাম (১৯৯৬-২০০০)।

সভাপতি, মুফতী আব্দুল হালিম সিরাজী, সাধারণ সম্পাদক, মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ী (২০০১-২০০২)।

সভাপতি, মৌলভী ইসমাঈল হোসেন, সাধারণ সম্পাদক, মাওলানা রফিকুল ইসলাম (২০০২-২০০৪)।

ভারপ্রাপ্ত সভাপতি, বীর মুক্তিযোদ্ধা পীরজাদা পীর আক্তার হোসেন বোখারী, সাধারণ সম্পাদক, মাওলানা রফিকুল ইসলাম (২০০৪-২০০৫)।

একই সময়ে একাংশের সভাপতি মাওলানা ইসমাঈল, সাধারণ সম্পাদক, মাওলানা ওমর ফারুক (২০০৪-২০১৪), অপরাংশের সভাপতি, বীর মুক্তিযোদ্ধা পীরজাদা পীর আক্তার হোসেন বোখারী, সাধারণ সম্পাদক, মাওলানা মুহাম্মদ আবুল হাসান শেখ শরীয়তপুরী (২০০৫-২০১৯)।

নতুন অন্য অংশ সভাপতি, মৌলভী ইলিয়াস হোসেন বিন হেলালী, সাধারণ সম্পাদক, ক্বারী মাওলানা আসাদুজ্জামান, পরে সাধারণ সম্পাদক, মুহাম্মদ দেলেয়ার হোসেন (২০০৬-২০১৬)।

সভাপতি, আহাদ আলী সরকার, সাধারণ সম্পাদক, মাওলানা ওমর ফারুক (২০১৪-২০২০১৮)।

সভাপতি, হাফেজ মাওলানা মুহাম্মদ আনোয়ার হোসেন জুয়েল, সাধারণ সম্পাদক, মাওলানা সোলাইমান নোমানী (২০১৪-২০১৯)।

সভাপতি, হাফেজ সোলাইমান, সাধারণ সম্পাদক, শাইখ মুফতী আলমগীর হোসেন (২০১৫-২০১৯)।

সভাপতি, মাওলানা ফরিদুজ্জামান, সাধারণ সম্পাদক, মাওলানা আব্দুল্লাহ আল ইসরাফিল (২০১৪-২০১৯)।

সভাপতি, মুফতী মিজানুর রহমান মিজানী, সাধারণ সম্পাদক, (২০১৪-২০১৯)।

সকল গ্রুপের সম্মতিক্রমে সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি গঠন, ভোটের মাধ্যমে সভাপতি নির্বাচিত, মুফতী শেখ মুহাম্মদ শহিদুল ইসলান, সদস্য সচিব নির্বাচিত, মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ী (২০১৯-২০২১)।

পরবর্তী সময়ে সভাপতি, মুফতী মাসুম বিল্লাহ নাফিয়ী, সাধারণ সম্পাদক, হাফেজ মাওলানা আনোয়ার হোসেন জুয়েল (২০২১-২০২৩)।

সভাপতি, হাফেজ সোলাইমান, সাধারণ সম্পাদক, শাইখ মুফতী আলমগীর হোসেন।

সভাপতি, পীরজাদ পীর আক্তার হোসেন বোখারী, সাধারণ সম্পাদক, হাসান শেখ শরীয়তপুরী।

সভাপতি, মাওলানা কামাল, সভাপতি, মুফতী মিজানুর মিজানী, সভাপতি মাওলানা ফরিদুজ্জামান, সভাপতি আহাদ আলী সরকার,সভাপতি ক্বারী আসাদুজ্জামান, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা সোলাইমান, সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা ইসরাফিল, সাধারণ সম্পাদক হাফেজ মাওলানা জাহাঙ্গীর আলম নূরানী হুজুর প্রমুখ।

বর্তমানে, জাতীয় সম্মেলন প্রস্তুতি আহবায়ক কমিটি, আহবায়ক, ড. কে.এম.আব্দুল মমিন সিরাজী, সদস্য সচিব, মুহাম্মদ দেলোয়ার হোসেন, অন্যরা যুগ্ম আহবায়ক ও সদস্য(৬-১১-২০২২)।যুগ্ম আহবায়ক ২৮ জন, সদস্য ১২৬ জন মোট ১৫৫ জনের আহবায়ক কমিটি।

ওলামা লীগের কেন্দ্রীয় নেতাদের তৎপরতায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কন্যা দেশরত্ন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা এমপি’র নির্দেশে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ এর সংগ্রামী প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা ড. আবদুস সোবহান গোলাপ এমপি’র আন্তরিকতায় দলের সংগ্রামী সাধারণ সম্পাক বীর মুক্তিযোদ্ধা ওবায়দুল কাদের এমপি’র অনুমতিক্রমে ২৯ এপ্রিল ২০২৩ শনিবার সকাল ১০ টায় ফার্মগেট কৃষিবিদ ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে ৫৬ বছর পর বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগ এর এই ১ম ত্রি-বার্ষিকী সম্মেলন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ইনশাআল্লাহ।

সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে থাকার সদয় সম্মতি দিয়েছেন ওবায়দুল কাদের এমপি মাননীয় মন্ত্রী পরিবহন ও সেতু এবং সার্বিক তত্ত্বাবধায়ন ও প্রধান আলোচক জননেতা ড. আবদুস সোবহান গোলাপ এমপি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী’র বিশেষ সহকারী ও অন্যান্য জাতীয় নেতৃবৃন্দ।

সম্মেলনে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদে সম্ভাব্য প্রতিযোগিতায় থাকছে অনেকেই।এই হলো আওয়ামী ওলামা লীগের ধারাবাহিতার ইতিহাস ও সম্মেলন ২০২৩।

প্রতিষ্ঠা সদস্য,
বাংলাদেশ আওয়ামী ওলামা লীগ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twenty + nine =


অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ

x